ভক্তদের কাছে ক্ষমা চেয়ে যা বললেন অধিনায়ক শান্ত!

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে সুপার এইটে টানা তিন ম্যাচ হেরে বিশ্বকাপ থেকে বিদায় নিল বাংলাদেশ। ২০০৭ থেকে এই টুর্নামেন্টের সবকয়টি আসরে নিয়ে এবারই প্রথম সুপার এইটে খেলে টাইগাররা। বাংলাদেশের সামনে সুযোগ ছিল সেমিফাইনালে যাওয়ার। কিন্তু আসরজুড়ে ব্যাটিং ব্যর্থতায় একরাশ হতাশা উপহার দিল বাংলাদেশ। আফগানিস্তানের কাছে হেরে ম্যাচ শেষে সমর্থকদের কাছে ক্ষমা চেয়েছেন অধিনায়ক নাজমুল হোসেন শান্ত।

গ্রুপপর্বের চার ম্যাচের তিন জয়ে খুব একটা খারাপ করেনি বাংলাদেশ। দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে হারলেও হাড্ডাহাড্ডি লড়াই করে টাইগাররা। কিন্তু সুপার এইটে কোন সম্ভাবনাই তৈরি করতে পারেনি লিটন দাসরা। একে একে অস্ট্রেলিয়া, ভারত এবং আফগানিস্তানের কাছে হ্যাটট্রিক হার হজম করেছে বাংলাদেশ।

ম্যাচ শেষে সংবাদ সম্মেলনে শান্ত বলেন, ‘সব মিলিয়ে টুর্নামেন্ট নিয়ে বলব, আমরা দল হিসেবে পুরো বাংলাদেশের সমর্থকদের হতাশ করেছি। যারা আমাদের খেলা দেখেন, সব সময় আমাদের সমর্থন করেন, তাদের আমরা হতাশ করেছি। আমি দলের পক্ষ থেকে ক্ষমাপ্রার্থী। ব্যাটিং গ্রুপ আমরা দেশের মানুষকে ওইরকম ভালো কিছু দিতে পারিনি। এটার জন্য আমরা দুঃখিত।’

সুপার এইটের অপর দুই ম্যাচ হারলেও আজ আফগানদের হারিয়ে বাংলাদেশের সামনে সুযোগ ছিল সেমিফাইনাল খেলার। হাতছানি দেওয়া সে সুযোগ মুঠোবন্দি করতে পারেনি বাংলাদেশ। ১২.১ ওভারে ১১৫ রান তাড়া করার চ্যালেঞ্জে উতরে যেতে পারেনি বাংলাদেশ। উল্টো ম্যাচ হেরেছে বৃষ্টি আইনে ৮ রানের ব্যবধানে।

শান্ত আরও বলেন, ‘এই হার অনেক হতাশার এবং অনেক কষ্টেরও। এই ম্যাচ খেলতে আসার আগে সবারই পরিকল্পনা ছিল, ম্যাচটা আগে আমরা জিতব। কিন্তু যদি সে রকম পরিস্থিতি হয়, ওই সুযোগটা আমরা নেব (সেমিফাইনালের সমীকরণ)। যেটা আমাদের হাতে ছিল, ওটা আমরা নিতে পারিনি। পুরো ব্যাটিং গ্রুপই আমরা বাজে বাজে সিদ্ধান্ত নিয়েছি।’

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Scroll to Top